কোর ম্যানেজমেন্ট কমিটি

তারিক আফজাল

Tarique Afzal
তারিক আফজাল

প্রেসিডেন্ট এন্ড ম্যানেজিং ডিরেক্টর

জনাব তারিক আফজাল ২০১৮ সালে ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর – কর্পোরেট অ্যাফেয়ার্স, আইনী ও নিয়ন্ত্রক বিষয়ক কার্যক্রমের প্রধান হিসেবে এবি ব্যাংকে যোগদান করেন। পরবর্তীতে ৮ই জুলাই ২০১৯ তারিখে তিনি প্রেসিডেন্ট এন্ড ম্যানেজিং ডিরেক্টর পদে মনোনীত হন।

এবি ব্যাংকে যোগদানের পূর্বে তিনি সোনালী পোলারিস ফাইন্যান্সিয়াল টেকনোলজি লিমিটেডের (সোনালী ব্যাংক ও পোলারিস, ভারতের যৌথ উদ্যোগ) প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ছিলেন।

জনাব তারিক আফজাল নিজস্ব অভিজ্ঞতা ও কর্মদক্ষতা বলে বৈদেশিক কর্মক্ষেত্রেও সফল ছিলেন। ১৯৮০ এর দশকের শেষদিকে লন্ডনে, কানাডার ক্রেডিট ইউনিয়নে এবং পরবর্তীতে এএনজেড গ্রিন্ডলেজ ব্যাংক ও স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ব্যাংক বাংলাদেশে কর্মরত ছিলেন।

এছাড়াও তিনি ব্যাংক আলফালাহ ও ব্র্যাক ব্যাংকে কর্মরত ছিলেন এবং ডান এন্ড ব্র্যাডস্ট্রীট রেটিং এজেন্সি, বাংলাদেশের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ছিলেন।

তাঁর প্রধান যোগ্যতার মধ্যে রয়েছে নতুন ব্যবসা প্রেক্ষাপট তৈরি, পরিচালন কার্যকারিতার উৎকর্ষ সাধন, কর্মীদক্ষতা উন্নয়ন এবং নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ সমূহের সাথে সম্পর্ক জোরদার করা।

সাজ্জাদ হুসাইন

Sajjad Hussain
সাজ্জাদ হুসাইন

উপ – ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং চিফ রিস্ক অফিসার

জনাব সাজ্জাদ হুসাইন ডিএমডি অপারেশনস ও চিফ রিস্ক অফিসার হিসেবে ফেব্রুয়ারি ২০১৪ সালে এবি ব্যাংকে যোগদান করেন। তিনি দেশে ও বিদেশে বিভিন্ন স্থানীয় এবং বহুজাতিক বাণিজ্যিক ব্যাংকে কাজ করেছেন।

জনাব হুসাইন ১৯৮৪ সালে আমেরিকান এক্সপ্রেস ব্যাংক লিমিটেড (বাংলাদেশ), এ ক্রেডিট অপারেশনস (লোন অ্যাডমিনিস্ট্রেশন) বিভাগের প্রধান হিসেবে তার কর্মজীবন শুরু করেন। তিনি ১৪ বৎসর ধরে বিভিন্ন পদে কাজ করেছেন এবং সর্বশেষ একই ব্যাংকে সিনিয়র ডিরেক্টর ও কান্ট্রি অপারেশনস অফিসার হিসেবে নিয়োজিত ছিলেন। জনাব হুসাইন ১৯৯৮ থেকে ২০০৫ সাল পর্যন্ত আমেরিকান এক্সপ্রেস ব্যাংক লিমিটেডের নিউ ইয়র্ক শাখার অপারেশন কনসালটেন্ট এবং পরবর্তীতে মিয়ামি শাখার ম্যানেজার অপারেশনস হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। জনাব হুসাইন সিনিয়র এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট ও অপারেশনস বিভাগের প্রধান হিসেবে ২০০৮ সালে ওয়ান ব্যাংক লিমিটেডে যোগদান করেন এবং পরবর্তীতে ঢাকা ব্যাংকে ২০১১ সালে উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে যোগদান করেন এবং এবি ব্যাংকে যোগদানের পূর্ব পর্যন্ত সেখানেই কর্মরত ছিলেন। জনাব হুসাইন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক(সম্মান) সহ ইংরেজি সাহিত্যে এমএ ডিগ্রী অর্জন করেন।

শামসিয়া আই মুতাসিম

Shamshia I Mutasim
শামসিয়া আই মুতাসিম

উপ – ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং এইচ আর প্রধান

মিস শামসিয়া আই মুতাসিম ১৯৮৬ সালে প্রথম মহিলা ম্যানেজমেন্ট ট্রেইনি হিসেবে বাংলাদেশ টোবাকো কোম্পানির মানব সম্পদ বিভাগে কর্মজীবন শুরু করেন, যা পরবর্তীতে ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকো বাংলাদেশ নামে নামকরণ করা হয়। সেখানে তিনি কোম্পানির সব ব্যবসা বিভাগের বিভিন্ন অপারেশন সাইটের সর্ব স্তরের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের সঙ্গে কাজ করে হাতে কলমে মানব সম্পদ দক্ষতা অর্জন করেছেন। তার কর্মজীবনের সে সময় তিনি দেশে এবং বিদেশে প্রশিক্ষণ পেয়েছেন এবং কোম্পানির সিনিয়র ম্যানেজমেন্ট লেভেলে উন্নীত হন। তিনি বি এ টি এর অপারেশন কমিটির একজন সদস্য ছিলেন। তিনি বি এ টি এর এশিয়া / সেন্ট্রাল এশিয়ায় অবস্থিত অন্যান্য কার্যালয় এর মনোনীত Y2K কন্টিনজেন্সী প্ল্যানিং ফ্যাসিলিটেটর হিসেবে মনোনীত হয়ে কাজ করেছেন।

এক দশকেরও বেশি সময় ধরে এই গ্লোবাল কোম্পানিতে কাজ করার পর তিনি ইন্ডাস্ট্রি পরিবর্তন করেন এবং ২০০১ সালে আর্থিক সেক্টরে যোগদান করেন। তিনি ইস্টার্ন ব্যাংকের এইচআর প্রধান হিসেবে এবং বাংলাদেশ ব্যাংকে “সেন্ট্রাল ব্যাংক স্ট্রেনদেনিং প্রকল্পে” জাতীয় এইচআর উপদেষ্টা হিসেবে কাজ করেছেন এবং এবি ব্যাংকে এইচআর-এর প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

তিনি ২০০৭ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসরত তার পরিবারের সাথে যোগ দেয়ার জন্য বাংলাদেশ ত্যাগ করেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে স্থানান্তরিত হওয়ার পর, তিনি গত দশ বছরে বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের উচ্চতর স্তরে এইচআর প্রফেশনাল হিসেবে কাজ করেন।

২০১৭ সালের এপ্রিল মাসে মিস মুতাসিম উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে এবি তে পুনরায় যোগদান করেন; তিনি বর্তমানে এইচআর এর প্রধান। আবার এবি তে যোগদান করার জন্য তার প্রেরণা হল: “এবি মানব সম্পদ উন্নয়নে অসাধারণ বিনিয়োগ করে এবং একটি পরিবেশ তৈরি করতে সহায়তা করে যা তার কর্মচারীদের জন্য উচ্চ কর্মদক্ষতার মানদণ্ড নির্ধারণ করে এবং একটি কেয়ারিং নিয়োগকর্তা হিসাবে তাদের কর্মজীবন জুড়ে তাদের প্রতিপালন করে”।

মিস মুতাসিম ক্যালিফোর্নিয়ার স্টেট ইউনিভার্সিটি, স্যাক্রামেন্টো, ইউএসএ থেকে পাবলিক অ্যাডমিনিস্ট্রেশনে মাস্টার্স ডিগ্রি লাভ করেন। তিনি দাতব্য এবং সামাজিক-মানবাধিকার বিষয়ে আগ্রহী। তিনি বিবাহিত এবং দুই কন্যা সন্তানের জননী।

রিয়াজুল ইসলাম

Mr. Reazul Islam
রিয়াজুল ইসলাম

উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক, আইটি ও ই-বিজ প্রধান

জনাব রিয়াজুল ইসলাম, ডি.এম.ডি, ১৬ই জানুয়ারী ২০০৬ ইং সালে এবি ব্যাংক লিমিটেডে ভি.পি ও আই.টি বিভাগ এর প্রধান হিসেবে যোগদান করেন এবং পরবর্তীকালে উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে পদোন্নতি লাভ করেন । বর্তমানে তিনি আইটি ও ই-বিজ বিভাগের প্রধান হিসেবে কাজ করছেন ।

এবি ব্যাংক লিমিটেড এ যোগদানের পূর্বে তিনি সাউথইস্ট ব্যাংক লিমিটেড, প্রিমিয়ার ব্যাংক লিমিটেড, আইটি কনসালটেন্টস লিমিটেড (Q Cash) এর পাশাপাশি বাংলাদেশ এবং আমেরিকার বিভিন্ন প্রকল্পে কাজ করেছেন ।

জনাব ইসলাম, আমেরিকার সাউথ ইস্টার্ন ওকলাহোমা স্টেট ইউনিভার্সিটি থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন।

মহাদেব সরকার সুমন

Mahadev Sarker Sumon
মহাদেব সরকার সুমন

স্পেশাল এ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট টিম প্রধান

জনাব মহাদেব সরকার সুমন মার্চ ২০০৩ সালে ব্যাংকে যোগদান করেন। এবি ব্যাংকে যোগদানের পূর্বে তিনি ১৯৯৭ থেকে ২০০২ পর্যন্ত সুইডিশ সিডার অর্থায়নে এবং ব্যবস্থাপনায় পরিচালিত “রুরাল এমপ্লয়মেন্ট সেক্টর প্রোগ্রাম (আর ই এস পি)” এ সিনিয়র অডিট এন্ড অ্যাকাউন্টস অফিসার হিসেবে কাজ করেন।

জনাব সরকার ম্যানেজমেন্টে তার স্নাতকোত্তর ডিগ্রী সম্পন্ন করেন এবং ইনস্টিটিউট অব চার্টার্ড অ্যাকাউন্ট্যান্টস বাংলাদেশের (আইসিএবি) এর একজন ফেলো সদস্য। তিনি বর্তমানে স্পেশাল এ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট টিমের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।।

জনাব সরকার দেশে এবং বিদেশে বিভিন্ন প্রশিক্ষণ, কর্মশালা ও সেমিনার এ অংশগ্রহণ করেছেন। তিনি যুক্তরাজ্যে ব্যাসেল-২ এর উপর সার্টিফিকেশন কোর্স সম্পন্ন করেন।

এম. এন. আজিম

এম. এন. আজিম
এম. এন. আজিম

বিভাগীয় প্রধান, ফিনান্সিয়াল ইন্সন্টিটিউশন্স এবং ট্রেজারি বিভাগ

জনাব এম. এন. আজিম ১৯৯২ সালে এবি ব্যাংকে তার পেশাতগ জীবন শুরু করেন। ১৯৯৭ সাল থেকে পরবর্তী ৩ বছরের অধিককাল তিনি এবি ইন্টারন্যাশনাল ফাইনান্স লিমিটেড, হংকং এ কর্মরত ছিলেন।
দীর্ঘ ২৫ বছরের পেশাগত জীবনে জনাব আজিম এবি ব্যাংকের ট্রেজারী ব্যাক অফিস, ট্রেজারী ফ্রন্ট অফিস এবং ফিনান্সিয়াল ইন্সিটিটিউশন বিভাগে কর্মরত ছিলেন। তন্মধ্যে তিনি কিছুদিনের জন্য শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের আন্তর্জাতিক বিভাগের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। জনাব আজিম ২০০৬ সালে পুনরায় এবি ব্যাংকের এ্যাসেট লাইবিলিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের প্রধান হিসেবে যোগদান করেন। পরর্বতীতে ২০১৪ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত তিনি এবি ব্যাংকের মুম্বাই ব্রাঞ্চ এর প্রধান নির্বাহী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। বর্তমানে তিনি এবি ব্যাংকের ফিনান্সিয়াল ইন্সটিটিউশনের প্রধান হিসেবে কর্মরত আছেন।
জনাব আজিম রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ফাইনান্স এন্ড ব্যাংকিং বিষয়ে মাষ্টার্স ডিগ্রী সম্পন্ন করেন। তিনি দেশে ও বিদেশে বিভিন্ন ধরনের প্রশিক্ষন, কর্মশালা ও সেমিনারে অংশ গ্রহন করেছেন।

ইফতেখার এনাম আওয়াল

ইফতেখার এনাম আওয়াল
ইফতেখার এনাম আওয়াল

হেড অব কর্পোরেট বিজনেস ও এসএমই ব্যাংকিং

জনাব ইফতেখার এনাম আওয়াল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় হতে ফাইনান্স বিষয়ে স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করে ১৯৯৪ সালের জুন মাসে ৭ম ব্যাচ প্রবেশনারী অফিসার হিসেবে এবি ব্যাংকে কর্মজীবন শুরু করেন।

আধুনিক ব্যাংকিং এ অভিজ্ঞতা সম্পন্ন জনাব ইফতেখার বিভিন্ন পর্যায়ে এবি ব্যাংকের বেশ কয়েকটি কর্পোরেট শাখার প্রধান হিসেবে এবং প্রধান কার্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগে গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি তার সুদীর্ঘ কর্মজীবনে ক্রেডিট, ফরেন এক্সচেঞ্জ , ব্রাঞ্চ অপারেশন ও শাখা ব্যবস্থাপকের দায়িত্ব অত্যন্ত নিষ্ঠা ও সুনামের সাথে পালন করেছেন। বর্তমানে তিনি ব্যাংকের কর্পোরেট ও এসএমই বিভাগের প্রধান হিসেবে কর্মরত আছেন। ব্যাংকের কোর ম্যানেজমেন্ট কমিটি, এসেট লায়াবিলিটি কমিটিতেও তিনি সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করে চলেছেন। ক্রেডিট, ফরেন এক্সচেঞ্জ ও ব্যাংকিং সংক্রান্ত অন্যান্য বিষয়ে এবি ব্যাংক ট্রেনিং একাডেমির তিনি একজন নিয়মিত প্রশিক্ষক।

তিনি দেশে ও বিদেশে বিভিন্ন ধরণের প্রশিক্ষণ, কর্মশালা ও সেমিনারে অংশ গ্রহন করেছেন।